নারীর মনে কি হচ্ছে তা জানর উপায়

9018মানুষের মন বড়ো জটিল জিনিষ৷ কিন্তু এই মন কি৷ বিশেষজ্ঞের এক অংশ বলেন, মন নাকি মস্তিষ্কেরই একটি অংশ৷ এখানে যা হয় আমরা সেই অনুযায়ী প্রতিক্রিয়া দিয়ে থাকি৷ তবে অন্যের মাথায় কি চলছে তা জানতে কার না ইচ্ছে করে? বিশেষত প্রথম কাউকে ভালো লাগলে তার মন কেমন তা জানতে সবাই উদগ্রীব হয়৷ ছ’টি সহজ উপায়ে আপনি পড়ে ফেলতে পারবেন আপনার প্রিয় মানুষের মন৷ জেনে নিন সেগুলি কি কি৷

বডি ল্যাঙ্গুয়েজ:–শারীরিক কিছু প্রতিক্রিয়া দেখে খুব সহজে বুঝে নেওয়া যায় কি চলছে তাদের মনে অথবা মাথায়৷ যেমন একজনের কপালে ভাঁজ দেখলে বুঝতে অসুবিধা হয় না যে সে কিছু বিষয় নিয়ে চিন্তিত৷ মানুষের মধ্যে কোনও বিষয় নিয়ে চিন্তা বা হতাশা থাকলে তার মধ্যে কর্টিসলের মাত্রা বেড়ে যায়৷ তার ফলে তার ঘুমের অভ্যাসে পরিবর্তন,খাদ্যাভ্যাসে পরিবর্তন, ওজন বৃদ্ধি এই সব লক্ষণ দেখা যায়৷ সুতরাং কোনও ব্যক্তির মধ্যে যদি এই সব পরিবর্তন হঠাৎ লক্ষ্য করা যায় তাহলে বুঝে নিতে হবে তার মানসিক চাপ রয়েছে৷

শ্বাস প্রশ্বাস:–কেউ যদি স্বাভাবিকভাবে গভীর শ্বাস নেয় তাহলে সে নিশ্চিন্ত৷ আবার যদি কেউ খুব ঘন ঘন শ্বাস নেয় তাহলে বুঝতে হবে তার কোনও বিষয় নিয়ে চিন্তা বা ভয় রয়েছে৷ কেউ অস্থির ভাবে শ্বাস নেওয়া মানে তার ভিতর কিছু ভয় রয়েছে যা সে লুকিয়ে রখতে চাইছে৷

চোখ:–মানুষের চোখ অনেক কথা বলে দেয়৷ তাই চোখের ভাষা পড়তে পারলে মানুষের মন অনেকটা বুঝে নেওয়া যায়৷ একটি বিষয় নিয়ে যদি কোনও বেশি আগ্রহী হন তাহলে তার চোখ স্বাভাবিকভাবে বড় হয়৷ কিন্তু চোখ বড়ো করার সঙ্গে সঙ্গে কেউ যদি আবার চোখ ছোট করে নেন তাহলে বুঝতে হবে সে বিষয় নিয়ে সে আর আগ্রহী নয়৷ কিন্তু চোখ একটু বেশিক্ষন বড় থাকলে সে বিষয়ে তার যথেষ্ট আগ্রহ রয়েছে৷

গলার স্বর:–একজনের কথা বলার ভঙ্গিও অনেক কিছু বুঝিয়ে দেয়৷ ধীরে ধীরে কথা বলার সাধরণ অর্থ হল শান্ত এবং নিশ্চিন্ত থাকা৷ আবার অন্যদিকে খুব দ্রুত কথা বলার অর্থ চিন্তা৷

সময়:–একটি মানুষকে সঠিকভাবে চিনতে হলে তার সঙ্গে সময় কাটানো খুব দরকার৷ তার সঙ্গে কথা বলা এবং দীর্ঘসময় কাটানো তাকে বুঝতে অনেকটা সাহায্য করে৷ যত বেশি সময় কাটানো যায় একজন মানুষের সঙ্গে তাকে তত ভালো করে বোঝা যায়৷

নিজের তৈরি করা পরিবেশ:–শেষে একথা বলতেই হয় যে কিছু পরিবেশ নিজের তৈরি করাও হয়৷ কোনও একটি ঘটনাকে বর্ননা করার অনেক রকম ভঙ্গিমা হয়৷ কোনও ছোট্ট ঘটনাকে ইচ্ছাকৃত ভয়ানক ঘটনার মতো করেও প্রকাশ করা যায়৷

Updated: November 1, 2016 — 9:18 pm

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

bdtips © 2015